আব্দুর রহমান ইবনু বিশর (রহঃ) থেকে বর্ণিত হাদিস পাওয়া গেছে 5 টি

পরিচ্ছেদঃ ৩৮৭. বিচারক হতে চাওয়া এবং দ্রুত বিচার করা।

৩৫৩৯. মুহাম্মদ ইবন আলা (রহঃ) ..... আবদুর রহমান ইবন বিশর আরযাক (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেনঃ একদা কিনদা গোত্রের দু'ব্যক্তি একটি মোকদ্দমা নিয়ে হাযির হয়। এ সময় আবদুল্লাহ ইবন মাস'ঊদ (রাঃ) হালকার মধ্যে বসে ছিলেন। তখন সে দু ব্যক্তি জিজ্ঞাসা করে যে, এখানে কি এমন কেউ আছেন, যিনি আমাদের ব্যাপারটি ফয়সালা করে দিতে পারেন? তখন হালকার মধ্য হতে এক ব্যক্তি বলেঃ আমি ফায়সালা করে দেব। এ সময় আবূ মাস'ঊদ (রাঃ) এক মুষ্টি কাঁকর নিয়ে তার প্রতি নিক্ষেপ করে বলেনঃ অপেক্ষা কর। বস্তুত আবদুল্লাহ্‌ ইবন মাস'ঊদ (রাঃ) ফয়সালার ব্যাপারে জলদি করাকে খারাপ মনে করতেন।

باب فِي طَلَبِ الْقَضَاءِ وَالتَّسَرُّعِ إِلَيْهِ

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ الْعَلاَءِ، وَمُحَمَّدُ بْنُ الْمُثَنَّى، قَالاَ أَخْبَرَنَا أَبُو مُعَاوِيَةَ، عَنِ الأَعْمَشِ، عَنْ رَجَاءٍ الأَنْصَارِيِّ، عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ بِشْرٍ الأَنْصَارِيِّ الأَزْرَقِ، قَالَ دَخَلَ رَجُلاَنِ مِنْ أَبْوَابِ كِنْدَةَ وَأَبُو مَسْعُودٍ الأَنْصَارِيُّ جَالِسٌ فِي حَلْقَةٍ فَقَالاَ أَلاَ رَجُلٌ يُنَفِّذُ بَيْنَنَا فَقَالَ رَجُلٌ مِنَ الْحَلْقَةِ أَنَا ‏.‏ فَأَخَذَ أَبُو مَسْعُودٍ كَفًّا مِنْ حَصًى فَرَمَاهُ بِهِ وَقَالَ مَهْ إِنَّهُ كَانَ يُكْرَهُ التَّسَرُّعُ إِلَى الْحُكْمِ ‏.‏


AbdurRahman ibn Bishr al-Ansari al-Azraq said: Two men from the locality of Kindah came while AbuMas'ud al-Ansari was sitting n a circle. They said: Is there any man who decides between us. A man from the circle said: I, AbuMas'ud took a handful of pebbles and threw at him, saying: Hush! It is disapproved to make haste in decision.


হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai'f)
বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু বিশর (রহঃ)
পুনঃনিরীক্ষণঃ

পরিচ্ছেদঃ ৫৫. আযল করা

৩৩৩০. ইসমাঈল ইবন মাসউদ এবং হুমায়দ ইবন মাস'আদা (রহঃ) ... আব্দুর রহমান ইবন বিশর ইবন মাসউদ (রাঃ) হতে বর্ণিত, তিনি হাদীসটিকে আবু সাঈদ খুদরী (রাঃ)-এর দিকে সম্পর্কিত করেছেন, তিনি বলেছেন, একদা রাসূলুল্লাহ্ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর নিকট এ আযল সম্বন্ধে উল্লেখ করা হলে তিনি বললেনঃ এটা কি? আমরা বললামঃ কোন ব্যক্তির স্ত্রী থাকে, আর সে তার সাথে সহবাস করার সময় গৰ্ভধারণ করাকে অপছন্দ করে; অথবা তার দাসী থাকে, তার সাথে সহবাস করে এবং গর্ভধারণ অপছন্দ করে। তিনি বললেনঃ এটা না করলে তোমাদের ক্ষতি নাই। কেননা, যা নির্ধারিত আছে তা হবেই।

بَاب الْعَزْلِ

أَخْبَرَنَا إِسْمَعِيلُ بْنُ مَسْعُودٍ وَحُمَيْدُ بْنُ مَسْعَدَةَ قَالَا حَدَّثَنَا يَزِيدُ بْنُ زُرَيْعٍ قَالَ حَدَّثَنَا ابْنُ عَوْنٍ عَنْ مُحَمَّدِ بْنِ سِيرِينَ عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ بِشْرِ بْنِ مَسْعُودٍ وَرَدَّ الْحَدِيثَ حَتَّى رَدَّهُ إِلَى أَبِي سَعِيدٍ الْخُدْرِيِّ قَالَ ذُكِرَ ذَلِكَ عِنْدَ رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ قَالَ وَمَا ذَاكُمْ قُلْنَا الرَّجُلُ تَكُونُ لَهُ الْمَرْأَةُ فَيُصِيبُهَا وَيَكْرَهُ الْحَمْلَ وَتَكُونُ لَهُ الْأَمَةُ فَيُصِيبُ مِنْهَا وَيَكْرَهُ أَنْ تَحْمِلَ مِنْهُ قَالَ لَا عَلَيْكُمْ أَنْ لَا تَفْعَلُوا فَإِنَّمَا هُوَ الْقَدَرُ


It was narrated from 'Abdur-Rahman bin Bishr bin Mas'ud, who attributed the Hadith to Abu Sa'eed Al-Khudri, that mention of that (coitus interruptus) was made to the Messenger of Allah and he said: "Why do you do that?" We said: "A man may have a wife, and he has intercourse with her, but he does not want her to get pregnant, or he may have a concubine, and he has intercourse with her, but he does not want her to get pregnant." He said: "It does not make any difference if you do that, for it is the matter of Al-Qadr."


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু বিশর (রহঃ)
পুনঃনিরীক্ষণঃ

পরিচ্ছেদঃ ৪৫. যে ব্যক্তি প্রসিদ্ধি ও পরিচিতিকে অপছন্দ করে

৫৪৭. আব্দুর রহমান ইবনু বিশর বলেন: আমরা খাব্বাব ইবনু আরাত রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু’র নিকট ছিলাম। তখন তার নিকট তার সাথীরা একত্রিত হলে তিনি চুপ থাকলেন। তখন তাকে বলা হলো: আপনি কি আপনার সাথীদের নিকট হাদীস বর্ণনা করবেন না? তিনি উত্তরে বলেন: আমার আশঙ্কা যে, আমি হয়তো তাদের এমন কিছু বলব, যা আমি আমল করি না।”[1]

بَابُ مَنْ كَرِهَ الشُّهْرَةَ وَالْمَعْرِفَةَ

أَخْبَرَنَا مَخْلَدُ بْنُ مَالِكٍ حَدَّثَنَا يَحْيَى بْنُ سَعِيدٍ عَنْ الْأَعْمَشِ عَنْ رَجَاءٍ الْأَنْصَارِيِّ عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ بِشْرٍ قَالَ كُنَّا عِنْدَ خَبَّابِ بْنِ الْأَرَتِّ فَاجْتَمَعَ إِلَيْهِ أَصْحَابُهُ وَهُوَ سَاكِتٌ فَقِيلَ لَهُ أَلَا تُحَدِّثُ أَصْحَابَكَ قَالَ أَخَافُ أَنْ أَقُولَ لَهُمْ مَا لَا أَفْعَلُ
في إسناده رجاء الأنصاري وهذا إسناد ضعيف


হাদিসের মানঃ হাসান (Hasan)
বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু বিশর (রহঃ)
পুনঃনিরীক্ষণঃ

পরিচ্ছেদঃ ৩. বিচার চাওয়া এবং তাড়াহুড়া করে ফায়সালা দেয়া

৩৫৭৭। আব্দুর রাহমান ইবনু বিশর আল-আযরাক আল-আনসারী (রাঃ) সূত্রে বর্ণিত। তিনি বলেন, একদা কিনদার দু’ ব্যক্তির ঝগড়ারত অবস্থায় এসে উপস্থিত হলো। এ সময় আবূ মাসঊদ (রাঃ) এক বৈঠকে বসা ছিলেন। তারা উভয়ে বললো, আমাদের মাঝে ফায়সালা করে দেয়ার মত কেউ আছে কি? বৈঠকে উপস্থিত এক ব্যক্তি বললো, আমি। আবূ মাসঊদ (রাঃ) এক মুষ্টি কংকর তুলে তার দিকে ছুঁড়ে মারলেন এবং বললেন, থামো! বিচারের ক্ষেত্রে তাড়াহুড়া করা নিন্দনীয়।[1]

সনদ দুর্বল।

بَابٌ فِي طَلَبِ الْقَضَاءِ وَالتَّسَرُّعِ إِلَيْهِ

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ الْعَلَاءِ، وَمُحَمَّدُ بْنُ الْمُثَنَّى، قَالَا: أَخْبَرَنَا أَبُو مُعَاوِيَةَ، عَنِ الْأَعْمَشِ، عَنْ رَجَاءٍ الْأَنْصَارِيِّ، عَنْ عَبْدِ الرَّحْمَنِ بْنِ بِشْرٍ الْأَنْصَارِيِّ الْأَزْرَقِ، قَالَ: دَخَلَ رَجُلَانِ مِنْ أَبْوَابِ كِنْدَةَ وَأَبُو مَسْعُودٍ الْأَنْصَارِيُّ، جَالِسٌ فِي حَلْقَةٍ، فَقَالَا: أَلَا رَجُلٌ يُنَفِّذُ بَيْنَنَا، فَقَالَ: رَجُلٌ مِنَ الْحَلْقَةِ أَنَا فَأَخَذَ أَبُو مَسْعُودٍ كَفًّا مِنْ حَصًى فَرَمَاهُ بِهِ، وَقَالَ: مَهْ إِنَّهُ كَانَ يُكْرَهُ التَّسَرُّعُ إِلَى الْحُكْمِ

ضعيف الإسناد


AbdurRahman ibn Bishr al-Ansari al-Azraq said: Two men from the locality of Kindah came while AbuMas'ud al-Ansari was sitting n a circle. They said: Is there any man who decides between us. A man from the circle said: I, AbuMas'ud took a handful of pebbles and threw at him, saying: Hush! It is disapproved to make haste in decision.


হাদিসের মানঃ যঈফ (Dai'f)
বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু বিশর (রহঃ)
পুনঃনিরীক্ষণঃ

পরিচ্ছেদঃ ১. ইসতিহাযা (রক্তপ্রদরের রোগিণী)

৮০২(৪০). আবু বাকর আন-নায়শাপুরী (রহঃ) ... আব্দুর রহমান ইবনে বিশর ইবনুল হাকাম (রহঃ) বলেন, আমরা দাউদ আল-খুরায়বীর নিকট থেকে ইয়াহইয়া ইবনে সাঈদ আল-কাত্তান (রহঃ)-এর নিকট এলে তিনি জিজ্ঞেস করেন, তোমরা কোথা থেকে এলে? আমরা বললাম, আবদুল্লাহ ইবনে দাউদের নিকট থেকে। তিনি বলেন, তিনি কি তোমাদের নিকট কোন সূত্রে হাদীস বর্ণনা করেছেন? আমরা বললাম, তিনি আমাদের নিকট আল-আমাশ (রহঃ)-হাবীব ইবনে আবু সাবেত-উরওয়া-আয়েশা (রাঃ) সূত্রে হাদীস বর্ণনা করেছেন। ইয়াহইয়া ইবনে সাঈদ আল-কাত্তান (রহঃ) বলেন, নিশ্চয়ই সুফিয়ান আস-সাওরী (রহঃ) এ বিষয়ে সর্বাধিক জ্ঞানী। তিনি মনে করেন, হাবীব ইবনে আবু সাবেত (রহঃ) উরওয়া ইবনুয যুবায়ের (রহঃ) থেকে কোন হাদীস শ্রবণ করেননি।

حَدَّثَنَا أَبُو بَكْرٍ النَّيْسَابُورِيُّ ، ثَنَا عَبْدُ الرَّحْمَنِ بْنُ بِشْرِ بْنِ الْحَكَمِ ، قَالَ : جِئْنَا مِنْ عِنْدِ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ دَاوُدَ الْخُرَيْبِيِّ إِلَى يَحْيَى بْنِ سَعِيدٍ الْقَطَّانِ ، فَقَالَ : مِنْ أَيْنَ جِئْتُمْ ؟ قُلْنَا : مِنْ عِنْدِ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ دَاوُدَ . فَقَالَ : مَا حَدَّثَكُمْ ؟ قُلْنَا : حَدَّثَنَا عَنِ الْأَعْمَشِ ، عَنْ حَبِيبِ بْنِ أَبِي ثَابِتٍ ، عَنْ عُرْوَةَ ، عَنْ عَائِشَةَ الْحَدِيثَ . فَقَالَ يَحْيَى : أَمَا إِنَّ سُفْيَانَ الثَّوْرِيَّ كَانَ أَعْلَمَ النَّاسِ بِهَذَا ، زَعَمَ أَنَّ حَبِيبَ بْنَ أَبِي ثَابِتٍ لَمْ يَسْمَعْ مِنْ عُرْوَةَ بْنِ الزُّبَيْرِ شَيْئًا


হাদিসের মানঃ তাহকীক অপেক্ষমাণ
বর্ণনাকারীঃ আব্দুর রহমান ইবনু বিশর (রহঃ)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
দেখানো হচ্ছেঃ থেকে ৫ পর্যন্ত, সর্বমোট ৫ টি রেকর্ডের মধ্য থেকে